রবিবার, ০৯ মে, 2০২1
ডা. পারমিতা করিম
Published : Sunday, 2 May, 2021 at 7:55 PM

প্রতিকারের চেয়ে প্রতিরোধই ভালোবিশ্বজুড়ে মানুষের জীবনযাপনে ব্যাপক পরিবর্তন এনেছে করোনা মহামারি। পাশাপাশি প্রত্যেক মানুষকে ব্যক্তিগত স্বাস্থ্য সুরক্ষাকে অধিকতর গুরুত্ব দিতে শিখিয়েছে নতুনভাবে। ব্যক্তিগত স্বাস্থ্য আমাদের প্রতিদিনের জীবনযাপনের অন্যতম অংশ হওয়া উচিত।

কিছু নিয়মিত অভ্যাস যেমন পানিশূন্যতা রোধে বেশি করে পানি খাওয়া, ভালো রক্ত সঞ্চালনের জন্য হাটা এবং ফুসফুসকে ভালো রাখতে শ্বাস-প্রশ্বাসের চর্চা আমাদের জীবনকে অধিকতর আনন্দময় করতে পারে। প্রতিদিনের অভ্যাসের পাশাপাশি নিয়মিত স্বাস্থ্য পরীক্ষা (অন্তত বছরে একবার) সুস্বাস্থ্য বজায় রাখতে সাহায্য করবে।

স্বাস্থ্য পরীক্ষার মাধ্যমে শরীরের ঝুঁকি এবং অন্যান্য স্বাস্থ্য সমস্যা সম্পর্কে জানা যায়। পাশাপাশি কোনো প্রকার সুপ্ত অসুস্থতা কিংবা রোগ থাকলে তার চিকিৎসার করার সুযোগ পাবেন। এটা সবসময় গুরুত্বপূর্ণ যে নিয়মিত স্বাস্থ্য পরীক্ষা ভবিষ্যতে কিংবা এই মহামারিকালে কোন প্রকার কঠিন সমস্যা থেকে আপনাকে সুরক্ষা দিতে পারে। করোনাকালীন এ সময়ে বাসায় বসেই আপনি আপনার নিয়মিত স্বাস্থ্য পরীক্ষা করতে পারেন। প্রাভা হেলথসহ বিভিন্ন স্বাস্থ্য সেবা প্রতিষ্ঠান স্বাস্থ্যকর্মী বাসা থেকে রক্তের নমুনা সংগ্রহ করে থাকেন।

প্রতিটি স্বাস্থ্যকর্মী পিপিই ব্যবহারের পাশাপাশি সংক্রামন প্রতিরোধক ব্যবস্থা মেনে চলেন। হোম হেলথ চেকআপে রক্তের মান, সুগার, কিডনি পরিচলন, থাইরয়েড, লিভার ফাংশন এবং শরীরে ভিটামিন ডির পরিমাণ সম্পর্কে ধারণা পাবেন। এই চেকআপে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের পরামর্শও পাওয়া যাবে।

চাইলে ভার্চুয়ালিও নেয়া যাবে চিকিৎসকের পরামর্শ। ফ্যামিলি মেডিসিনের চিকিৎসক রক্তের রিপোর্ট দেখার সময় আপনার মেডিকেল সেবার ইতিহাস, পারিবারিক রোগের ইতিহাস এবং আপনার জীবনযাপন সম্পর্কে জানতে চাইতে পারেন।

পরবর্তী সাক্ষাতের সময় পর্যন্ত চিকিৎসক আপানার জন্য সেবা ব্যবস্থাপনা এবং জীবনযাপনে নির্দেশনা দিবেন। প্রয়োজন অনুযায়ী সেবাকে পরিপূর্ণ করতে চিকিৎসক স্বাস্থ্যসেবা দলের অন্যান্য সদস্য– নার্স, পুষ্টিবিদ এবং সাইকোথেরাপিস্টের সাথে পরামর্শ করে নেবেন। নিয়মিত স্বাস্থ্য পরীক্ষার প্রয়োজনীয়তা এখানে উল্লেখ করা হলো-

১। শরীরে পরিধি বাড়ার আগেই চিকিৎসক রোগ নির্ণয় করে প্রতিষেধক দিতে পারেন।

২। দ্রুত রোগ নির্ণয়ের মাধ্যমে স্বাস্থ্যগত জটিলতা এড়ানোও সম্ভব।

৩। স্বাস্থ্যের অবস্থা সম্পর্কে যেনে সময় অনুযায়ী সেবা নেয়া যায়।

৪। রোগ প্রতিরোধের মাধ্যমে স্বাস্থ্যসেবার ব্যয় অনেকাংশে কমে আসে।

কোন ধরনের চেকআপ আপনার জন্য প্রয়োজন সেটা চিকিৎসকের সাথে আলাপ করে যেনে নিতে পারবেন। হেলথ চেকআপ সম্পর্কে আরো জানা যাবে ১০৬৪৮ নম্বরে কল করে। যেহেতু করোনা মহামারি এখনো আমাদের সাথে আছে, আপনার নিজের স্বাস্থ্যকে গুরুত্ব দেয়াটা অনেক গুরুত্বপূর্ণ। আর নিয়মিত স্বাস্থ্য পরীক্ষা হতে পারে এ সময়ে সুস্বাস্থ্য বজায় রেখে নিরাপদ থাকার অন্যতম উপায়।

ডা. পারমিতা করিম
জ্যেষ্ঠ পরামর্শক, ফ্যামিলি মেডিসিন, প্রাভা হেলথ


পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত


DMCA.com Protection Status
সম্পাদক ও প্রকাশক: নাজমুল হক শ্যামল
দৈনিক নতুন সময়, বাড়ি ৭/১, রোড ১, পল্লবী, মিরপুর ১২, ঢাকা- ১২১৬
ফোন: ৫৮৩১২৮৮৮, ০১৯৯৪ ৬৬৬০৮৯, ইমেইল: info@notunshomoy.com
Developed & Maintainance by i2soft